Sale!

কালোজিরা ফুলের মধু ৫০০ গ্রাম

725.00৳ 

জাতীয় পুরষ্কারপ্রাপ্ত মৌ-চাষীর নিকট থেকে নিজে উপস্থিত থেকে সংগ্রহ করা সরিষা ফুলের পরিপক্ক ও র মধু।

99997 in stock

Description

“আপনি জানেন কি খাঁটি মধু আপনার স্বাস্থ্যের জন্য কতটুকু উপকারী? ”
আর সেটা যদি হয় একক কালোজিরা ফুলের মধু তাহলে উপকারিতা বেড়ে যায় বহুগুন। কারন কালোজিরা ও মধু কোরআনে বর্নিত দুটি রোগ নিরাময় ঔষধ। আর কোরআনে বর্ণিত প্রতিটি বাণীই ধ্রুব সত্য তা সকলেই বিশ্বাস করি।
প্রমানিত সত্য হলো কালোজিরা ফুলের মধু নিয়মিত সেবনে শারীরিক শক্তি বৃদ্ধি পায়।

পবিত্র কুরআনে আল্লাহ তা’আলা বলেন,

 মধুতে মানুষের জন্যে রয়েছে রোগের প্রতিকার । নিশ্চয় এটা চিন্তাশীল সম্প্রদায়ের জন্যে নিদর্শন।
-সূরা নাহল,আয়াত নং: 69 এবং 70

যদি পুষ্টিগুণ বিবেচনা করে একটি খাদ্য তালিকা তৈরি করা হয়, সে তালিকার প্রথমে আসবে ‘মধু’র নাম। এটি শরীরের জন্য অত্যন্ত উপকারী এবং নিয়মিত মধু সেবন করলে অসংখ্য রোগব্যাধি থেকে মুক্ত থাকা যায়।

মধুর উপকারিতা:

মধুর বহুমূখী গুনাগুন সম্পর্কে অধিকাংশ লোক অবগত নন। সাধারন মানুষ ভেবে থাকেন কিছু রোগ আরোগ্যেই এর প্রয়োগ হয়ে থাকে মাত্র। কিন্তু মধু যে একটি উত্তম আহার্য্য ও পানিয় সে বিষয়ে সবাই জ্ঞাত নন। আধুনিক বিজ্ঞানের কল্যাণে মধুর গুনাগুন জানতে পেরে পাশ্চাত্য দেশের বহু লোক মধুর উৎপাদন বৃদ্ধিতে সচেষ্ট হয়েছেন।

মধুর পুষ্টিগুণ:

সাধারন মানুষ জানে না যে মধুর মধ্যে কত ধরনের আর কি পরিমান পুষ্টিগুন রয়েছে। বিজ্ঞানীরা বলেন মানব শরীরের পক্ষে অত্যাবশ্যক ৮০ প্রকারের প্রয়োজনীয় মৌল উপাদান মধুর মধ্যে পাওয়া যায়।

মধুতে নানা ধরনের ভিটামিন রয়েছে। যেমন ভিটামিন বি১, বি২, বি৩, বি৫, বি৬, আয়োডিন, জিংক ও কপার সহ অ্যান্টিব্যাকটেরিয়াল ও অ্যান্টিমাইক্রোবিয়াল উপাদান। ১০০ গ্রাম মধুতে থাকে ২৮৮ ক্যালরি রয়েছে। ভিটামিনের অভাবে আমাদের শরীর বেরিবেরি, রিকেট, স্কার্বি প্রভূত জটিল ব্যাধিতে আক্রান্ত হতে পারে। নিয়মিত মধু সেবনে এই জটিল ব্যাধি থেকে রেহাই পাওয়া যেতে পারে ।
তথ্য সূত্র: উইকিপিডিয়া।

সতর্কতা:
এতসব উপকার পেতে হলে আপনাকে অবশ্যই অথেন্টিক সোর্স থেকে পরিপক্ক, র ও খাঁটি মধু সংগ্রহ করতে হবে।

কালোজিরা ফুলের মধুর বৈশিষ্ট্য

মধুর বৈশিষ্ট্য সম্পর্কে সঠিক জ্ঞান না থাকলে আপনি যে মধু কিনছেন তা খাঁটি  তা বুঝতে পারবেন না। তাই মধুর বৈশিষ্ট্য জানা খুবিই দরকার।
আমাদের মনে রাখতে হবে যে, একেক ফুলের মধুর একেক রকম বৈশিষ্ট্য থাকে। যেমনঃ স্বাদ, গন্ধ, রং ও ঘনত্ব এর বেশ পরিবর্তন থাকে। যেমনঃ লিচু ফুলের মধু, সরিষা ফুলের মধু, সুন্দরবনের মধু ইত্যাদি। সব ফুলের মধুরই আছে ভিন্ন ভিন্ন গুণাগুণ ও বৈশিষ্ট্য। তাই কালোজিরা ফুলের মধুরও আছে ইউনিক কিছু বৈশিষ্ট্য।
স্বাদঃ আপনারা অনেকেই খেজুরের গুড় খেয়েছেন আশাকরি। এই কথাটি বলার কারণ হলো আপনি যদি কালোজিরা ফুলের মধু খান তাহলে বলবেন যে, গুড় এবং এই মধুর মাঝে কোনই পার্থক্য নাই। অর্থাৎ কালোজিরা ফুলের মধুর স্বাদ একদম খেজুরের গুড়ের মতো। তবে ভুলে গেলে চলবে না, মধু তো মধুই। সেটা কখনোই গুড় নই।
গন্ধঃ স্বাদ যেহেতু অনেকটা গুড়ের মতো তবে গন্ধ কিন্তু গুড়ের মতো না। বেশ আকর্ষণীয় এবং মনোমুগ্ধকর। আরেকটি জিনিষ মনে রাখতে হবে, আমাদের অনেকেই বলে থাকেন যে মধু খুব মিষ্টি। তাদের উদ্দেশে বলছি, জি ভাই মধু খুব মিষ্টি। কারণ মধু চিনির থেকেও কয়েকগুন বেশি মিষ্টি হতে পারে।
রংঃ কালোজিরা ফুলের মধুর স্বাদ প্রায় গুড়ের মতো এবং দেখতে কালার ও কিন্তু গুড়ের মতোই প্রায়। কালো কালো টাইপ এর।
ঘনত্বঃ এইটি স্পেসিফিক ভাবে বলা কঠিন। মধুর ঘনত্ব ডিপেন্ড করে পারিপার্শ্বিক আবহাওয়া, তাপমাত্রা, মধু পরিপক্ব কি না এবং মৌচাষির উপরে। তবে আমাদের দেশে যে মধু বিক্রি হয় তা সাধারণত ১৮% থেকে ২৫% পর্যন্ত জলীয় উপাদান থাকে। অনেক সময় কিছু কম বেশ হয়। জলীয় উপাদান যত কম হবে মধু তত ঘন হবে।

মধু অর্ডার করতে Order now বাটনে ক্লিক করে আপনার নাম, ঠিকানা ও মোবাইল নাম্বার দিন। তারপর আপনার ডেলিভারী এলাকা নির্বাচন করুন।
অর্ডার সম্পন্ন করুন।
অথবা আমাদের কে ফোন করতে পারেন 01723310412 অথবা 01644466017 এই নাম্বারে।

ধন্যবাদ।
মধু খান, সুস্থ্য থাকুন।

Additional information

Weight 0.5 kg